শিরোনাম

  নৌকার জয় সুনিশ্চিত : প্রধানমন্ত্রী   আজ ইউপিডিএফ’র ২০তম প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী   এবার থাইল্যান্ডে বৈধ হলো গাঁজা   ইউপিডিএফ প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উপলক্ষে সকলকে সংগ্রামী শুভেচ্ছা জানালেন প্রসিত বিকাশ খীসা   চীনা শিশুরা আর স্কুল পালাতে পারবে না!   আবার ক্ষমতায় গেলে ভুল সংশোধন করা হবে : কাদের   প্রধানমন্ত্রী থেকে মাতৃভাষার বই পেয়েছে ক্ষুদ্র জনগোষ্ঠীর শিশুরা   শুভ বড়দিন আজ   রোহিঙ্গাদের জন্য শীতবস্ত্র পাঠাল ভারত   ইন্দোনেশিয়ায় সুনামির আঘাতে মৃতের সংখ্যা বেড়ে ৪০০ অধিক ছাড়িয়েছে   টাকার মালা উপহার পেলেন ফখরুল!   মধ্যরাত থেকে নির্বাচনী মাঠে সেনাবাহিনী   ভোটের দিন ২৪ ঘণ্টা সব যান চলাচল বন্ধ   সেনা মোতায়েনে ভোটারদের মধ্যে আস্থা ফিরে আসবে: সিইসি   পানছড়িতে ইউপিডিএফের নির্বাচনী অফিসে এলোপাতাড়ি ব্রাশ ফায়ারে ২ জন নিহত!   জেএসসি ও পিইসি পরীক্ষার ফল প্রকাশ   আগামী ৩০ তারিখ আমরা নৌকার বিজয় নিয়ে ঘরে ফিরবো: দীপংকর তালুকদার   ইন্দোনেশিয়ায় সুনামির আঘাতে মৃতের সংখ্যা বেড়ে ২২২ জন   যারা মানুষ পুড়িয়ে মারে তাদের ভোট দেবেন নাঃ প্রধানমন্ত্রী   ২৮ ডিসেম্বর থেকে ১ জানুয়ারি মধ্যরাত পর্যন্ত ৪ দিন মোটরসাইকেল চলাচলে নিষেধাজ্ঞা
প্রচ্ছদ / আন্তর্জাতিক / এবার দক্ষিণ কোরিয়া থেকে পাওয়া সম্মাননা হারাচ্ছেন সুচি

এবার দক্ষিণ কোরিয়া থেকে পাওয়া সম্মাননা হারাচ্ছেন সুচি

প্রকাশিত: ২০১৮-১২-২০ ২৩:৩১:২১

   আপডেট: ২০১৮-১২-২০ ২৩:৪০:৫৬

আন্তর্জাতিক ডেস্ক >>

দক্ষিণ কোরিয়ার অন্যতম মানবাধিকার সংগঠন মেমোরিয়াল ফাউন্ডেশন মিয়ানমারের স্টেট কাউন্সিলর অং সান সুচিকে দেয়া পুরস্কার প্রত্যাহার করে নেবে।

সংখ্যালঘু রোহিঙ্গাদের বিরুদ্ধে অমানবিক নির্যাতনের ব্যাপারে তার উদাসীনতার কারণে তারা এটি তুলে নিচ্ছে। মঙ্গলবার আয়োজকরা একথা জানান। খবর এএফপির।

সামরিক জান্তার হাতে গৃহবন্দি থাকায় সুচি ২০০৪ সালে গোয়াংঝু মানবাধিকার পুরস্কার গ্রহণ করতে পারেননি। তার দল মিয়ানমারের ক্ষমতা গ্রহণের পর শান্তিতে নোবেল জয়ী এ নেত্রী স্টেট কাউন্সিলরের উপাধি পান।

কিন্তু রোহিঙ্গাদের ওপর চরম নৃশংসতা চলাকালে গণতন্ত্রের পক্ষের এক সময়ের সদা সোচ্চার থাকা এ নেত্রী একেবারে উদাসীন থাকায় তাকে জোরালোভাবে অভিযুক্ত করা হচ্ছে।

জাতিসংঘ সতর্ক করে বলেছে, মুসলিম সংখ্যালঘুদের লক্ষ্য করে চালানো গণহত্যা এখনো অব্যাহত রয়েছে।

মেমোরিয়েল ফাউন্ডেশনের মুখপাত্র চো জিন-তায়ে এএফপিকে বলেন, রোহিঙ্গাদের বিরুদ্ধে নৃশংসতার ব্যাপারে সুচির উদাসীনতা এ পুরস্কারের মূল্যবোধ পরিপন্থী। এর ফলে ফাউন্ডেশনের বোর্ড সোমবার সুচির এ পুরস্কার প্রত্যাহার করে নেয়ার সিদ্ধান্ত গ্রহণ করে।

এর আগে ফ্রান্সের রাজধানী প্যারিস শহর থেকে অং সান সু চিকে দেয়া সম্মানসূচক ‘ফ্রিডম অব প্যারিস অ্যাওয়ার্ড’ কেড়ে নেয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে সেখানকার কর্তৃপক্ষ।মিয়ানমারে রোহিঙ্গা সংখ্যালঘু চলতি মাসের মাঝামাঝি সময়ে সিটি কাউন্সিল এ বিষয়টি চূড়ান্ত করবে বলে জানিয়েছেন শহরটির মেয়রের একজন মুখপাত্র।

প্যারিস শহরের মেয়রের দপ্তর থেকে জানানো হয়েছে, গত বছর মেয়র অ্যানা মিয়ানমারের নেত্রী অং সান সু চিকে লেখা এক চিঠিতে রোহিঙ্গা জনগোষ্ঠীকে নিয়ে তার উদ্বেগ এবং তাদের অধিকারের প্রতি সম্মান প্রদর্শনের আহ্বান জানিয়েছিলেন।

কিন্তু মিয়ানমারের পক্ষ থেকে সেই চিঠির কোনো উত্তর দেওয়া হয়নি। সেনা অভিযানের বিরুদ্ধে সোচ্চার হতে সু চি ব্যর্থতার পরিচয় দেয়ায় এ সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে।

এর আগে যুক্তরাজ্যের গ্লাসগো, এডিনবার্গ এবং অক্সফোর্ড শহর একই ধরনের পদক্ষেপ নিয়েছিল। তবে মিয়ানমারের কার্যত নেত্রী সু চির কাছ থেকে যদি ফ্রিডম অব প্যারিস অ্যাওয়ার্ড কেড়ে নেয়া হয়, তাহলে তিনিই হবেন এই পুরস্কার হারানো প্রথম ব্যক্তি।

আপনার মন্তব্য

আলোচিত