শিরোনাম

  নৌকার জয় সুনিশ্চিত : প্রধানমন্ত্রী   আজ ইউপিডিএফ’র ২০তম প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী   এবার থাইল্যান্ডে বৈধ হলো গাঁজা   ইউপিডিএফ প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উপলক্ষে সকলকে সংগ্রামী শুভেচ্ছা জানালেন প্রসিত বিকাশ খীসা   চীনা শিশুরা আর স্কুল পালাতে পারবে না!   আবার ক্ষমতায় গেলে ভুল সংশোধন করা হবে : কাদের   প্রধানমন্ত্রী থেকে মাতৃভাষার বই পেয়েছে ক্ষুদ্র জনগোষ্ঠীর শিশুরা   শুভ বড়দিন আজ   রোহিঙ্গাদের জন্য শীতবস্ত্র পাঠাল ভারত   ইন্দোনেশিয়ায় সুনামির আঘাতে মৃতের সংখ্যা বেড়ে ৪০০ অধিক ছাড়িয়েছে   টাকার মালা উপহার পেলেন ফখরুল!   মধ্যরাত থেকে নির্বাচনী মাঠে সেনাবাহিনী   ভোটের দিন ২৪ ঘণ্টা সব যান চলাচল বন্ধ   সেনা মোতায়েনে ভোটারদের মধ্যে আস্থা ফিরে আসবে: সিইসি   পানছড়িতে ইউপিডিএফের নির্বাচনী অফিসে এলোপাতাড়ি ব্রাশ ফায়ারে ২ জন নিহত!   জেএসসি ও পিইসি পরীক্ষার ফল প্রকাশ   আগামী ৩০ তারিখ আমরা নৌকার বিজয় নিয়ে ঘরে ফিরবো: দীপংকর তালুকদার   ইন্দোনেশিয়ায় সুনামির আঘাতে মৃতের সংখ্যা বেড়ে ২২২ জন   যারা মানুষ পুড়িয়ে মারে তাদের ভোট দেবেন নাঃ প্রধানমন্ত্রী   ২৮ ডিসেম্বর থেকে ১ জানুয়ারি মধ্যরাত পর্যন্ত ৪ দিন মোটরসাইকেল চলাচলে নিষেধাজ্ঞা
প্রচ্ছদ / আন্তর্জাতিক / ঘূর্ণিঝড় ‘গাজা’র আঘাতে মৃত ৩০

ঘূর্ণিঝড় ‘গাজা’র আঘাতে মৃত ৩০

প্রকাশিত: ২০১৮-১১-১৭ ১০:৪৫:৪২

আন্তর্জাতিক ডেস্ক >>

ভারতের তামিলনাড়ু রাজ্যে একটি বড় অংশকে তছনছ করে দিয়ে গিয়েছে ঘূর্ণিঝড় ‘গাজা’। রাজ্যের ছয় জেলায় ছড়িয়ে ছিটিয়ে রয়েছে সেই ধ্বংসলীলা, মারা গেছে ৩০ জন।

শুক্রবার ভোরে তামিলনাড়ুর উপকূলে আছড়ে পড়ে গাজা। ১২০ কিলোমিটার বেগে ঝড়ো হাওয়ার সাথে মুষলধারে বৃষ্টি। ঝড়ে বিধ্বস্থ তামিলনাড়ুর নাগাপট্টিনম, বেদারানায়মসহ রাজ্যের একাধিক এলাকা। বিশেষভাবে ক্ষতিগ্রস্থ উপকূল এলাকা।

বহুদিন এমন ঝড় দেখেনি তামিলনাড়ু। ঝড়ের দাপটে ছয় জেলায় উপড়ে গেছে কমপক্ষে ১৩ হাজার বিদ্যুতের খুঁটি। ফলে রাজ্যের একটি বড় অংশই বিদ্যুত বিচ্ছিন্ন। ভেঙে পড়ে বেশ কিছু টেলিকমিউনিকেশন টাওয়ার, মাটির বাড়ি, বড় গাছ।

সবচেয়ে বেশি ক্ষতিগ্রস্থ নাগাপট্টিনম। সেখানে উপকূলবর্তী এলাকায় ভেঙে পড়েছে হাজার হাজার ঘরবাড়ি। মারা গিয়েছে অসংখ্য গৃহপালিত পশু। বড় ক্ষতির আশঙ্কায় আগেই নাগাপট্টিনম ও অন্যান্য এলাকা থেকে ৮১ হাজার ৯৪৮ জনকে সরিয়ে নিয়েছিল প্রশাসন। তাদের রাখা হয়েছিল ৪৭১টি ক্যাম্পে। কাড্ডালোর, রামানাথাপুরম, তাঞ্জাভুর, পুডুকোটি ও তিরুভারু জেলার অবস্থায় শোচনীয়।

ঝড়ের সাথে প্রবল বৃষ্টিতে ভেসে গেছে মাঠের ফসল। অধিকাংশ জেলায় মাঠেঘাটে জমে রয়েছে হাঁটুজল। ক্ষয়ক্ষতির পরিমাপ করতে আপাতত আকাশে চক্কর দিচ্ছে নৌসেনার কপ্টার। সবচেয়ে বেশি ক্ষতি হয়েছে উপকূলবর্তি নাগাপট্টিনম, কাড্ডালোর। মৎসজীবীদের নৌকো ভেঙে তছনছ হয়ে পড়ে রয়েছে সমুদ্রতীরবর্তী বিভিন্ন এলাকায়।

সরকার ইতোমধ্যেই মৃতদের পরিবারপিছু ১০ লাখ রুপি ক্ষতিপূরণ দেয়ার কথা ঘোষণা করেছে। আহতদের দেয়া হবে এক লাখ রুপি। যুদ্ধকালীন তৎপরতায় ত্রাণের কাজ শুরু করেছেন রাজ্যের দুর্যোগ মোকাবিলা দফতরের কর্মীরা।

পাঁচদিন ধরেই বঙ্গোপসাগরে পুঞ্জীভূত হচ্ছিল ঘূর্ণিঝড়টি, শ্রীলঙ্কা যার নামকরণ করে গাজা। সমুদ্রের জলীয় বাষ্প শুষে সেটি যেমন আয়তনে বাড়ছিল, গতি ছিল তুলনায় শ্লথ। বৃহস্পতিবার ‘সাইক্লোন’ থেকে ‘সিভিয়ার সাইক্লোন’-এ পরিণত হয় গাজা। সূত্র: জি নিউজ

আপনার মন্তব্য

আলোচিত