শিরোনাম

  রাঙ্গামাটি কুদুকছড়িতে চান্দের গাড়ি উল্টে ১ জন নিহত   এই বছর বাড়ির ছাদেও থার্টিফাস্ট নাইট পালন করা যাবে না : স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী   ১০ বছরে ২৫ লাখ বিএনপির নেতাকর্মী আসামী : মামলা সংখ্যা ৯০ হাজার   রাষ্ট্র এবং রাজনীতি সংখ্যালঘুদের নিরাপত্তা দিতে ব্যর্থ হয় বলেই তারা দেশ ত্যাগ করে : রানা দাশগুপ্ত   না ফেরার দেশে ব্রাজিলের হলুদ জার্সির রূপকার   দীঘিনালায় প্রধান শিক্ষক ঊষা আলো চাকমাকে মুক্তি দিয়েছে সন্ত্রাসীরা   এবারের বিসিএস আবেদনকারীর সংখ্যা মালদ্বীপ ও আইসল্যান্ডের জনসংখ্যার থেকেও বেশি!   কাল থেকে প্রাথমিক সমাপনী পরীক্ষা শুরু   রোহিঙ্গা বিদ্রোহী (আরসার) ভয়ে রোহিঙ্গারা মিয়ানমারে ফিরেনি: পুনর্বাসন মন্ত্রী   মিয়ানমারের ইয়াংগুনের উপকূলে শতাধিক রোহিঙ্গা আটক   নেইমারের গোলে জিতল ব্রাজিল   ক্যালিফোর্নিয়ায় দাবানলে নিহত ৭১, নিখোঁজ ১ হাজার   মুক্তি পেল চলচ্চিত্র ‘হাসিনা : এ ডটার'স টেল’   ৪০তম বিসিএসে রেকর্ড সংখ্যক প্রার্থীর আবেদন   নির্বাচনে গুজব ঠেকাতে প্রস্তুত রয়েছে র‌্যাব-পুলিশ   ঘূর্ণিঝড় ‘গাজা’র আঘাতে মৃত ৩০   এসিল্যান্ড নাজিম উদ্দিনসহ রাঙ্গামাটির ১০ উপজেলায় নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট নিয়োগ দেওয়া হয়েছে   জনগণ আমাদের সাথে রয়েছে, বিএনপিকে অপকর্ম থেকে বিরত থাকার জন্য প্রধানমন্ত্রীর আহবান   নির্বাচন আর পেছানো হচ্ছে না : ইসি   ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে নবান্ন উৎসব শুরু
প্রচ্ছদ / আন্তর্জাতিক / লাওসে বাঁধ ধসে ৩৬ জনের মৃত্যু, নিখোঁজ ৯৮

লাওসে বাঁধ ধসে ৩৬ জনের মৃত্যু, নিখোঁজ ৯৮

প্রকাশিত: ২০১৮-০৮-১৩ ১৬:৪৯:৪৪

বাসস >>

লাওসের দক্ষিণাঞ্চলে বাঁধ ধসে ৩৬ জন মারা গেছে এবং আরো ৯৮ জন নিখোঁজ হয়েছে।নিখোঁজদের উদ্ধারে সেনা সদস্যদের সঙ্গে সিঙ্গাপুরের একটি উদ্ধারকারী দল তল্লাশী অভিযান চালিয়ে যাচ্ছে। সোমবার স্থানীয় দৈনিক ভিয়েনতিয়েন টাইমস একথা জানিয়েছে।খবর বার্তা সংস্থা এএফপি’র।

লাও পিপল’স আমি’র ব্রিগেডিয়ার জেনারেল পলিটিক্যাল ডিপার্টমেন্টের উপ মহাপরিচালক ফ্যালম লিনথোং বলেন, ‘শনিবার তিনলাথ গ্রামে আমরা তিন বছর বয়সী একটি মেয়ের লাশ পেয়েছি। এই নিয়ে ৩৬ জনের মৃতের কথা জানা গেল। এদের মধ্যে আহত তিনজন হাসপাতালে চিকিৎসা নেয়ার সময় মারা যায়।’

তিনি আরো বলেন, ৫শ ৮৫ সেনা সদস্য ও সিঙ্গাপুর থেকে ১৭ উদ্ধারকর্মী এখনো নিখোঁজদের সন্ধানে তল্লাশী চালিয়ে যাচ্ছে। তবে ঘন কাদার কারণে তাদের তৎপরতা ব্যাহত হচ্ছে। কারণ এগুলোর কারণে লাশগুলো সনাক্ত করা কঠিন হয়ে পড়েছে।

ফ্যালম বলেন, ‘এক সপ্তাহ টানা বৃষ্টিপাতের পর অনেক এলাকা এখনো পানিতে নিমজ্জিত থাকায় অভিযানটি কঠিন হয়ে পড়েছে। ঘন কাদা, বালি ও অন্যান্য ধ্বংসাবশেষের কারণে আমাদের কঠিন চ্যালেঞ্জের সম্মুখীন হতে হচ্ছে।’

রোববার তিনি গণমাধ্যমকে বলেন, ‘এই ঘন ও শক্ত কাদা অপসারণে আমাদের আরো ভারী সরঞ্জামাদির প্রয়োজন। সৈন্য ও সিঙ্গাপুরের উদ্ধারকারী দলকে কাদাপানির মধ্যেই কাজ করতে হচ্ছে। এছাড়াও উপড়ে পড়া গাছ, ডালপালা ও ভবনের ধ্বংসস্তুপ উদ্ধার কাজকে অনেক কঠিন করে দিচ্ছে।’

দল দুটি এখন আত্তাপেউ প্রদেশের মাই, হিনলাথ ও থাসায়েংচান গ্রামে তল্লাশী শুরু করেছে।গত ২৩ জুলাই এই বন্যা দেখা দেয়। চীন, থাইল্যা- ও রিপাবলিক অব কোরিয়া ও লাওস থেকে উদ্ধারকারী দল তল্লাশী, ত্রাণ ও উদ্ধার অভিযানে যোগ দেয়।

আপনার মন্তব্য

আলোচিত