শিরোনাম

  ক্ষুদ্র জাতিগোষ্ঠীর জন্য মাতৃভাষায় পুস্তক প্রকাশনার বিধান রেখে খসড়ার চূড়ান্ত অনুমোদন দিয়েছে মন্ত্রিসভা   সরকারী চাকরিতে ক্ষুদ্র নৃগোষ্ঠী ও পিছিয়ে পড়া জনগোষ্ঠীর জন্য কোটা না হলেও সমস্যা হবে না   রুয়েটে ভর্তি পরীক্ষার আবেদন শুরু   দুই আদিবাসী কিশোরী ধর্ষণের ঘটনায় অভিযুক্তদের সুষ্ঠু তদন্তের মাধ্যমে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি   দেশের বিভিন্ন স্থানে বৃষ্টি অথবা বজ্রবৃষ্টি ও ভারী বর্ষণ হতে পারে   আদিবাসী মানবাধিকার সুরক্ষাকর্মীদের সম্মেলন ২০১৮ উদযাপন   ব্লগার বাচ্চু হত্যার সঙ্গে ‘জড়িত’ ২ জঙ্গি নিহত   জুমের বাম্পার ফলনে রাঙ্গামাটির চাষিদের মুখে হাসি   সরকারি চাকরিতে আদিবাসী কোটা বহাল দাবি জানাল আদিবাসীরা   আয়ারল্যান্ড প্রবাসী বাংলাদেশের এক মন্ত্রী দ্বারা হেনস্ত হওয়াতে হিন্দু, বৌদ্ধ ও খ্রিস্টান ঐক্য পরিষদের নিন্দা   শেখ হাসিনার জনপ্রিয়তা উল্লেখযোগ্য বৃদ্ধি পেয়েছে   মিয়ানমারে রয়টার্সের দুই সাংবাদিককে সাত বছরের কারাদণ্ড দিয়েছে আদালত   শহীদ আলফ্রেড সরেন হত্যার ১৮ বছর: হত্যাকারীদের দ্রুত বিচারের দাবি জাতীয় আদিবাসী পরিষদের   ভারতের কাছে ১-০ গোলে হেরেছে বাংলাদেশের মেয়েরা   সরকারী চাকরিতে নিয়োগের ক্ষেত্রে মুক্তিযোদ্ধা ছাড়া সব কোটা বাতিল হচ্ছে: স্বাস্থ্যমন্ত্রী   জাতিসংঘের সাবেক মহাসচিব কফি আনান মারা গেছেন   ঈদের ছুটি কাটানো হলোনা টেক্সটাইল ইঞ্জিনিয়ার নিরীহ ধীরাজ চাকমার   খাগড়াছড়িতে পৃথক ঘটনার জন্য জেএসএস(সংস্কারবাদী) ও নব্য মুখোশ বাহিনীকে দায়ী করেছে : ইউপিডিএফ   নানিয়ারচর থেকে খাগড়াছড়ি   খাগড়াছড়িতে ৬ জনকে গুলি করে হত্যা !
প্রচ্ছদ / আন্তর্জাতিক / ব্যবসা করা আর দেশ চালানো এক নয় : ট্রাম্প

ব্যবসা করা আর দেশ চালানো এক নয় : ট্রাম্প

প্রকাশিত: ২০১৮-০৮-০৬ ২২:৫২:০৮

অনলাইন ডেস্ক

এতকাল ট্রাম্প প্রশাসনের সমালোচনা করলেও মার্কিন প্রেসিডেন্টকে সরাসরি ব্যক্তিগত আক্রমণ করেনি চীনের রাষ্ট্রীয় সংবাদমাধ্যম। কিন্তু এবার ‘পিপলস ডেইলি’ পত্রিকার বৈদেশিক সংস্করণের এক সংবাদভাষ্যে সেই অভূতপূর্ব কাণ্ডই দেখা গেল। চীনের সরকারি এ পত্রিকাটি বলেছে, ‘স্ট্রিট ফাইটার' বা রাস্তার যোদ্ধার মতো ট্রাম্প ছলনার নাটক করে ভয়ভীতি দেখিয়ে কিছু সুবিধা আদায় করতে চাইছেন। কিন্তু বাকিরাও সেই নাটকের অংশ হবে, এমন সাধ মোটেই পূর্ণ হবে না।

চীনা কমিউনিস্ট পার্টির সংবাদপত্রটিতে মার্কিন প্রেসিডেন্টকে ব্যক্তিগতভাবে আক্রমণ করে লেখা হয়েছে, ' ‘ব্যবসা করা আর দেশ চালানো এক নয়।'' তাঁর এমন আচরণের কারণে রাষ্ট্র হিসেবে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের রাষ্ট্রীয় বিশ্বাসযোগ্যতা বিপন্ন হচ্ছে বলেও সাবধান করে দেয়া হয়েছে।

কিন্তু কেন এ আক্রমণ? একটু পেছন ফিরে দেখা যাক।

মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প তাঁর ‘অ্যামেরিকা ফার্স্ট' নীতির আওতায় বৈদেশিক বাণিজ্যের ক্ষেত্রে তাঁর দেশের প্রতি যাবতীয় ‘অন্যায়' দূর করতে চান। তাঁর দাবি, মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের সঙ্গে ব্যবসা-বাণিজ্যের ক্ষেত্রে গোটা বিশ্ব এতকাল অনেক অন্যায় সুবিধা পেয়ে এসেছে। এর ফলে মার্কিন শ্রমিকশ্রেণী ও কম্পানিগুলোর বিপুল ক্ষতি হয়েছে। তো এখন সেই ‘বৈষম্য' দূর করতে চান ট্রাম্প সাহেব, আর তা করতে গিয়ে তিনি একের পর এক শাস্তিমূলক পদক্ষেপ নিয়ে চলেছেন। যেমন, ইউরোপ ও চীনসহ গুরুত্বপূর্ণ বাণিজ্যিক সহযোগীদের উপর চাপ সৃষ্টি করতে ওসব দেশ থেকে একাধিক পণ্যের আমদানির ওপর শুল্ক চাপাতে চান তিনি। তারপর দ্বিপাক্ষিক চুক্তির মাধ্যমে অ্যামেরিকার জন্য সুবিধাজনক শর্তে বাণিজ্যিক সম্পর্ক ঢেলে সাজাতে চান।

সেসব ''চাওয়া''কে ''পাওয়ায়'' পরিণত করতে গিয়ে মি ট্রাম্প যা করছেন তার সবকিছু অবশ্য পরিকল্পনা অনুযায়ী চলছে না। বিশেষ করে চীন তীব্র প্রতিক্রিয়া দেখাচ্ছে। অ্যামেরিকার বিরুদ্ধে পাল্টা শাস্তিমূলক পদক্ষেপের পাশাপাশি আন্তর্জাতিক মুক্তবাণিজ্য কাঠামোর সুরক্ষায় সে দেশ নেতৃত্ব দিতে এগিয়ে এসেছ। শুধু জুলাই মাসেই অ্যামেরিকা ও চীন পরস্পরের ওপর প্রায় ৩,৪০০ কোটি ডলার মূল্যের শাস্তিমূলক শুল্ক চাপিয়েছে। অদূর ভবিষ্যতে চীন থেকে আমদানির ওপর নতুন করে আরও ১,৬০০ কোটি ডলারের শুল্ক চাপানোর ইঙ্গিত দিয়েছে ওয়াশিংটন।

এমন বাণিজ্যযুদ্ধের প্রেক্ষাপটেই মার্কিন প্রেসিডেন্টকে চীনের সরকারি পত্রিকার এ আক্রমণ। সূত্র : ডিডাব্লিউ

আপনার মন্তব্য

আলোচিত