শিরোনাম

  ভুটানকে ৫-০ গোলে উড়িয়ে ফাইনালে বাংলাদেশের মেয়েরা   খাগড়াছড়িতে সেটেলার কর্তৃক পাহাড়ী নারীকে ধর্ষণ চেষ্ঠা   গুলো-গুলি || আলোময় চাকমা   বঙ্গবন্ধুর সমাধিতে ফুল দিয়ে প্রধানমন্ত্রীর শ্রদ্ধা   মহালছড়িতে আবার ৩ গ্রামবাসীকে অপহরণ করেছে সন্ত্রাসীরা   আজ খালেদা জিয়ার জন্মদিন!   বাঙালির শোকের দিন আজ   বঙ্গবন্ধুর শোক দিবসে ২১০টি গরু জবাই দিয়ে কাঙালি ভোজ আয়োজন !   পিসিপি ২৬ তম কাউন্সিল ও ছাত্র সম্মেলন সম্পন্ন , নিপন ত্রিপুরাকে সভাপতি ও অমর শান্তি চাকমাকে সাধারণ সম্পাদক   পার্বত্য চুক্তি বাস্তবায়ন : অর্থনৈতিক না রাজনৈতিক সমস্যা ?   খাগড়াছড়িতে ৪ গ্রামবাসীকে মুক্তি দেওয়া হয়েছে   শান্তি চুক্তির পর পাহাড়ে যে উন্নয়ন হয়েছে তা টেলিটক থেকে মেসেজ করে আমরা পৌঁছে দেব : তারানা হালিম   এবার বিশ্বের মধ্যে খারাপ শহরের তালিকায় ২য় স্থানের নাম লিখেছে ঢাকা , বাংলাদেশ   জিয়াউর রহমানই পাহাড়ে সমতল থেকে মানুষ নিয়ে অশান্তির বীজ বপন করেছিল   সরকারি চাকরিজীবীরা বেতন-বোনাস পাচ্ছেন বৃহস্পতিবার   নেপালকে ৩-০ গোলে হারিয়ে সেমিফাইনালে মারিয়া মান্দার দল বাংলাদেশ   দৈনিক সমকালের সম্পাদক গোলাম সারওয়ার আর নেই   শহিদুলের মুক্তির দাবি জানিয়েছেন নোবেলজয়ী স্টিগলিজসহ ১৩ বরেণ্য ব্যক্তিত্ব   খাগড়াছড়িতে ৪ গ্রামবাসীকে অপহরণ করেছে সন্ত্রাসীরা   রিমান্ড শেষে অসুস্থ হয়ে পড়েছেন অভিনেত্রী নওশাবা
প্রচ্ছদ / আন্তর্জাতিক / মিয়ানমারে সেনা- জাতিগত বিদ্রোহী সংঘর্ষে নিহত ২০, আহত ২৯

মিয়ানমারে সেনা- জাতিগত বিদ্রোহী সংঘর্ষে নিহত ২০, আহত ২৯

প্রকাশিত: ২০১৮-০৫-১২ ১৫:২৯:৪১

   আপডেট: ২০১৮-০৫-১২ ১৫:৩৩:৫০

আন্তর্জাতিক ডেস্ক

মিয়ানমারের শান প্রদেশে সেনাবাহিনী এবং জাতিগত বিদ্রোহীদের সংঘর্ষে অন্তত ২০ জন নিহত ও ২৯ জন আহত হয়েছে। নিহতদের মধ্যে একজন পুলিশ ক্যাপ্টেন ও ছিলেন।

আজ ১২মে মিয়ানমার সংবাদমাধ্যম ইরাবতি এ তথ্য নিশ্চিত করেছে।

মিয়ানমারের রাষ্ট্রীয় কাউন্সিলর এর কার্যালয়ের মহাপরিচালক ইউ জা ইতয় বলেন, সংঘর্ষে ১৫ জন বেসামরিক নাগরিক, একজন পুলিশ ক্যাপ্টেন এবং তিনজন সরকার সমর্থিত মিলিশিয়ার সদস্য নিহত হয়েছেন।

এছাড়াও ২০ জন স্থানীয় লোক, তিন পুলিশ সদস্য ও ছয়জন সেনাবাহিনীর সদস্য আহত হয়েছে।

অন্তত ১০০ জন সৈন্য নিয়ে আজ ভোরে ৫টার সময় পান কান ব্রিজের সামনে হামলা করে। এতে ঘটনাস্থলে উভয়পক্ষে হতাহত হয়।

ঘটনার সত্যটা স্বীকার করে বিদ্রোহী দল (ন্যাশনাল লিবারেশন আর্মি) জানায়- ভোর সাড়ে ৫ টার দিকে তারা হামলা চালায় এবং সাড়ে ৮ টায় যুদ্ধ শেষ হয়।

বিদ্রোহীদের মধ্যে একজন মুখপাত্র জানান, এটি তুলনামূলক ছোট হামলা। তিনি বলেন মিয়ানমারের সেনাবাহিনী আমাদের অস্থায়ী ক্যাম্পগুলো ধ্বংস করে দিয়েছে। এ কারণে এ সংঘর্ষ হয়েছে বলে তিনি মন্তব্য করেন।

মিয়ানমারের উত্তরাঞ্চলে দীর্ঘদিন ধরে স্বায়ত্বশাসনের দাবিতে সরকারের বিরুদ্ধে লড়ে যাচ্ছে এ সংগঠনটি। শনিবার সেনাবাহিনীর সঙ্গে এই গ্রুপের সংঘর্ষ হয়।

এর আগে এই রকম হামলা ২০১৬ সালে নভেম্বরে হয়েছিল।

এদিকে, মিয়ানমারের প্রত্যন্ত উত্তরাঞ্চলে সেনাবাহিনী ও জাতিগত বিদ্রোহী গোষ্ঠীর মধ্যে নতুন করে শুরু হওয়া সংঘর্ষের কারণে হাজার হাজার লোক বাড়িঘর ছেড়ে অন্যত্র চলে গেছে।

সম্প্রতি মিয়ানমারের উত্তর প্রান্তে চীন সীমান্তের কাছে কাচিন রাজ্যে ৪ হাজারের বেশি আদিবাসী লোক বাস্তুচ্যুত হয়েছে।

এর আগে বছরের শুরুতে ওই অঞ্চলে সংঘর্ষ-সহিংসতার কারণে আরো প্রায় ১৫ হাজার লোক বাস্তুচ্যুত হয়েছে।

২০১১ সালে মিয়ানমার সরকার ও শক্তিশালী বিদ্রোহী গোষ্ঠী কাচান ইন্ডিপেন্ডেন্স আর্মির মধ্যে অস্ত্রবিরতি চুক্তি ভেঙ্গে যাবার পর থেকে কাচিন ও শান রাজ্যের শরণার্থী শিবিরগুলোতে আশ্রয় নেয়া অভ্যন্তরীণ বাস্তুচ্যূত মানুষের সংখ্যা ৯০ হাজার অতিক্রম করেছে।

আপনার মন্তব্য

আলোচিত