শিরোনাম

  ক্ষুদ্র জাতিগোষ্ঠীর জন্য মাতৃভাষায় পুস্তক প্রকাশনার বিধান রেখে খসড়ার চূড়ান্ত অনুমোদন দিয়েছে মন্ত্রিসভা   সরকারী চাকরিতে ক্ষুদ্র নৃগোষ্ঠী ও পিছিয়ে পড়া জনগোষ্ঠীর জন্য কোটা না হলেও সমস্যা হবে না   রুয়েটে ভর্তি পরীক্ষার আবেদন শুরু   দুই আদিবাসী কিশোরী ধর্ষণের ঘটনায় অভিযুক্তদের সুষ্ঠু তদন্তের মাধ্যমে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি   দেশের বিভিন্ন স্থানে বৃষ্টি অথবা বজ্রবৃষ্টি ও ভারী বর্ষণ হতে পারে   আদিবাসী মানবাধিকার সুরক্ষাকর্মীদের সম্মেলন ২০১৮ উদযাপন   ব্লগার বাচ্চু হত্যার সঙ্গে ‘জড়িত’ ২ জঙ্গি নিহত   জুমের বাম্পার ফলনে রাঙ্গামাটির চাষিদের মুখে হাসি   সরকারি চাকরিতে আদিবাসী কোটা বহাল দাবি জানাল আদিবাসীরা   আয়ারল্যান্ড প্রবাসী বাংলাদেশের এক মন্ত্রী দ্বারা হেনস্ত হওয়াতে হিন্দু, বৌদ্ধ ও খ্রিস্টান ঐক্য পরিষদের নিন্দা   শেখ হাসিনার জনপ্রিয়তা উল্লেখযোগ্য বৃদ্ধি পেয়েছে   মিয়ানমারে রয়টার্সের দুই সাংবাদিককে সাত বছরের কারাদণ্ড দিয়েছে আদালত   শহীদ আলফ্রেড সরেন হত্যার ১৮ বছর: হত্যাকারীদের দ্রুত বিচারের দাবি জাতীয় আদিবাসী পরিষদের   ভারতের কাছে ১-০ গোলে হেরেছে বাংলাদেশের মেয়েরা   সরকারী চাকরিতে নিয়োগের ক্ষেত্রে মুক্তিযোদ্ধা ছাড়া সব কোটা বাতিল হচ্ছে: স্বাস্থ্যমন্ত্রী   জাতিসংঘের সাবেক মহাসচিব কফি আনান মারা গেছেন   ঈদের ছুটি কাটানো হলোনা টেক্সটাইল ইঞ্জিনিয়ার নিরীহ ধীরাজ চাকমার   খাগড়াছড়িতে পৃথক ঘটনার জন্য জেএসএস(সংস্কারবাদী) ও নব্য মুখোশ বাহিনীকে দায়ী করেছে : ইউপিডিএফ   নানিয়ারচর থেকে খাগড়াছড়ি   খাগড়াছড়িতে ৬ জনকে গুলি করে হত্যা !
প্রচ্ছদ / আন্তর্জাতিক / আদিবাসীদের অঞ্চলে যুদ্ধ বন্ধ করতে মিয়ানমারে বিক্ষোভ প্রতিবাদ

আদিবাসীদের অঞ্চলে যুদ্ধ বন্ধ করতে মিয়ানমারে বিক্ষোভ প্রতিবাদ

প্রকাশিত: ২০১৮-০৫-০৮ ১৭:০১:০২

   আপডেট: ২০১৮-০৫-০৮ ১৭:০৬:৫০

আন্তর্জাতিক ডেস্ক

মিয়ানমারের প্রত্যন্ত উত্তরাঞ্চলে সেনাবাহিনী ও জাতিগত কাচিন ইন্ডিপেন্ডেন্স আর্মি বিদ্রোহী গোষ্ঠীর মধ্যে নতুন করে শুরু হওয়া সংঘর্ষ বন্ধ ও কাচিন রাজ্যে থেকে হাজার হাজার আদিবাসী গ্রামবাসীকে উদ্ধারের দাবিতে বিক্ষোভ সমাবেশ করেছে রাজ্যবাসীর বিভিন্ন সমাজকর্মী।

সেনাবাহিনী ও জাতিগত কাচিন ইন্ডিপেন্ডেন্স আর্মি বিদ্রোহী গোষ্ঠীর মধ্যে যুদ্ধ বন্ধ করতে মিয়ানমারের বিভিন্ন সচেতন মহল সোচ্চার হয়েছে। এ নিয়ে সম্প্রতি বিভিন্ন স্থানে প্রতিবাদ কর্মসূচি পালন করতে দেখা গেছে।

সচেতন মহলদের সরকারী কাছে দাবি যেন কাচিন রাজ্যে যুদ্ধ বন্ধ হয় এবং যুদ্ধ যারা বাস্তচ্যুত হয়েছে তাদেরকে উদ্ধার করতে হবে।

এদিকে, গেল রোববার জাতিগত এলাকায় যুদ্ধের অবসানের জন্য ও যুদ্ধের কারণে গ্রামবাসী আটকা পড়া থেকে উদ্ধার করতে মান্দালয়ে রাজপথে নেমেছিল বিক্ষোভকারীরা।

সংবাদ মাধ্যম ইরাবতি জানিয়েছে, বিক্ষোভের পরের দিন ইয়াঙ্গুনের কিউক্কাডা শহরের পুলিশ আয়োজকদের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করেছে।

পুলিশ বলছে , সরকারের কথা তোয়াক্কা না করে অনুমতি ব্যতিত বিক্ষোভ করা যাবেনা।

এ কারণে প্রশাসন সংবিধান ১৯ ধারা মোতাবেক ৩ জন নেতাকর্মীর বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করেছেন।

মান্দালয় জেলা পুলিশের উর্ধতন এক মুখপাত্র বলেন, নেতা অংহামিন সানসহ ৩ জনের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করা হয়েছে।

প্রায় ৪০ জনের অধিক সমাজকর্মী ও রাজেনতিক একটিভিস্ট শহরে নীল-শার্ট পড়ে 'মিয়ানমারে শান্তি চাই'  'যুদ্ধ চাইনা' 'জাতিগত সম্প্রদায় এলাকায় যুদ্ধ বন্ধ কর' ইত্যাদি প্লাকার্ড নিয়ে শহরে প্রদক্ষিণ করে।

বিক্ষোভকারীদের মধ্যে একজন বলেছিলেন- আমাদের কিছু করার নেই। জাতিগত সম্প্রদায়ের জনগোষ্ঠীরা বিপদে পরে আসে। সরকার যতই বেআইনি কর্মসূচি বলুক তবুও আমাদের দায়িত্ব প্রতিবাদ ও যুদ্ধে আটকা পড়াদের উদ্ধারের দাবি করা।

উল্লেখ্য, মিয়ানমারের প্রত্যন্ত উত্তরাঞ্চলে সেনাবাহিনী ও জাতিগত বিদ্রোহী গোষ্ঠীর মধ্যে নতুন করে শুরু হওয়া সংঘর্ষের কারণে হাজার হাজার লোক বাড়িঘর ছেড়ে অন্যত্র চলে গেছে।

সম্প্রতি মিয়ানমারের উত্তর প্রান্তে চীন সীমান্তের কাছে কাচিন রাজ্যে ৪ হাজারের বেশি আদিবাসী লোক বাস্তুচ্যুত হয়েছে।

এর আগে বছরের শুরুতে ওই অঞ্চলে সংঘর্ষ-সহিংসতার কারণে আরো প্রায় ১৫ হাজার লোক বাস্তুচ্যুত হয়েছে।

২০১১ সালে মিয়ানমার সরকার ও শক্তিশালী বিদ্রোহী গোষ্ঠী কাচান ইন্ডিপেন্ডেন্স আর্মির মধ্যে অস্ত্রবিরতি চুক্তি ভেঙ্গে যাবার পর থেকে কাচিন ও শান রাজ্যের শরণার্থী শিবিরগুলোতে আশ্রয় নেয়া অভ্যন্তরীণ বাস্তুচ্যূত মানুষের সংখ্যা ৯০ হাজার অতিক্রম করেছে।

আপনার মন্তব্য

আলোচিত