শিরোনাম

  বেসরকারি ইক্যুইটি আসছে ভুটানে   কক্সবাজারে হিন্দু সম্প্রদায়ের একই পরিবারের চারজনের মৃতদেহ উদ্ধার   ঢাকা সিটিতে নির্বাচন না হলে পেছাবে না এসএসসি পরীক্ষা   কুমিল্লায় উদ্ধার করা হলো ৩শ’ বছর পুরোনো মূল্যবান বৌদ্ধ মন্দির সদৃশ নকশা   নিউজিল্যান্ডের নতুন চমক বেন হুইলার   রাখাইনে সহিংসতার পর শত শত স্কুল বন্ধ   চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় থেকে সম্মানসূচক ডি.লিট ডিগ্রি পেলেন প্রণব মুখার্জি   রোহিঙ্গাদের জন্য আশ্রয়কেন্দ্র বানাচ্ছে মিয়ানমার   ২ বছরের মধ্যে রোহিঙ্গারা ফিরে যাবে, রূপরেখা চূড়ান্ত   আগামী ১৬ ফেব্রুয়ারী ঢাকাতে ' কাচালং ওয়েলফেয়ার সোসাইটি'র' এক যুগপূর্তি উপলক্ষ্যে জুম্মদের পুনর্মিলনী ও বনভোজন   আদিবাসী নারীদের মধ্যে প্রথম পিএইচডি ডিগ্রি অর্জন করলেন রূপানন্দা   ১০ বছর পর বেনজির ভুট্টোর হত্যার দায় স্বীকার করেছে তালেবান   আজ চবিতে যাচ্ছেন প্রণব মুখার্জি   মানুষের মনের ও চিন্তার দূষণ দূর করতে হবে : প্রণব মুখার্জি   ২ এপ্রিল থেকে এইচএসসি পরীক্ষা শুরু   বড় মহাপূরম উচ্চ বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত   জিম্বাবুয়েকে ৮ উইকেটে হারিয়ে ত্রিদেশীয় সিরিজে উড়ন্ত সূচনা বাংলাদেশের   পার্বত্য অঞ্চলে পাহাড়িদের নতুন আতঙ্কের নাম, পাহাড়িরা 'বার্মাইয়া' : রুমা দেওয়ান   বাগদাদে ভয়াবহ দুই আত্মঘাতী বোমায় নিহত ২৬, আহত ৯০   ১০ হাজার কনস্টেবল নিয়োগ স্থগিত
প্রচ্ছদ / আন্তর্জাতিক / রোহিঙ্গা হত্যার দায় স্বীকার মিয়ানমার সেনাবাহিনীর

রোহিঙ্গা হত্যার দায় স্বীকার মিয়ানমার সেনাবাহিনীর

প্রকাশিত: ২০১৮-০১-১১ ০৯:৫০:১৫

   আপডেট: ২০১৮-০১-১১ ১০:৩৬:৩০

আন্তর্জাতিক ডেস্ক

গেল বছর ডিসেম্বরে মিয়ানমারের রাখাইন রাজ্যের একটি গ্রামে দেশটির সেনাবাহিনীর দ্বারা সন্ধানকৃত গণকবরটি নিয়ে বেশ অনুসন্ধান চালাচ্ছে মিয়ানমারের তদন্ত কমিশন। সর্বশেষ তদন্ত কমিশন বুধবার গণমাধ্যমে দেওয়া বিজ্ঞপ্তিতে কিছু তথ্য উঠে এসেছে।

রাখাইনের রাজধানী সিত্তে থেকে প্রায় ৫০ কিলোমিটার উত্তরে ইন দিন গ্রামে অজ্ঞাত পরিচয় লোকজনের সন্ধ্যান পাওয়া গণকবরে ডিন গ্রামে দশজন মানুষকে হত্যার সাথে জড়িত রয়েছে নিরাপত্তা বাহিনীরা।

বিবিসির প্রতিবেদন অনুযায়ী, এটা সদ্য যে গ্রামবাসী এবং নিরাপত্তা বাহিনীর সদস্যরা উভয়পক্ষই স্বীকার করেছে যে তারা ১০জন 'সন্ত্রাসী'কে হত্যা করেছে"। তবে মিয়ানমারের সেনা কর্তৃপক্ষ বেসামরিক ব্যক্তিদের বিরুদ্ধে সহিংসতার বিষয়টি অস্বীকার করেছে।

এর আগে সেনাবাহিনীরা ঘোষণা দিয়েছিল আইন অনুযায়ী কোন সদস্য জড়িত থাকলে ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

এতে সেনাবাহিনীর মুখপাত্র লেফটেন্যান্ট জেনারেল 'আই উইন' এর নেতৃত্বে পাঁচ সদস্যের একটি তদন্ত দল গ্রামে গিয়ে গণকবরটি আশেপাশে তল্লাশি চালায়।

গত বছর ২৫ আগস্ট রাখাইনে পুলিশ ও সেনাবাহিনীর ৩০টি চৌকিতে আরাকান রোহিঙ্গা স্যালভেশন আর্মির হামলার পর মিয়ানমারের সেনাবাহিনী নির্বিচারে রোহিঙ্গা নিধন শুরু করে।নির্যাতনের হাত থেকে বাঁচতে গত কয়েক মাসে সাড়ে ছয় লাখের বেশি রোহিঙ্গা বাংলাদেশে পালিয়ে এসেছে। মানবাধিকার সংগঠনগুলোর বলছে, রোহিঙ্গাদের শত শত গ্রাম জ্বালিয়ে দেওয়া হয়েছে।

আপনার মন্তব্য


আলোচিত