শিরোনাম

  ব্রাজিলকে রুখে দিল সুইজারল্যান্ড   জার্মানিকে হারিয়ে মেক্সিকোর জয়   রাঙ্গামাটিতে সুরেন বিকাশ চাকমা নামে একজনকে গুলি করে হত্যা   বাবা বিশ্বকাপ খেলা দেখার সুযোগে মারমা কিশোরীকে ধর্ষণের পর হত্যা করেছে দুর্বৃত্তরা   আজ মেক্সিকোর বিপক্ষে মাঠে নামবে জার্মানি   আমিই এক নম্বর দাবি করলেন : নেইমার   আমি সব ধর্মের মানুষকে সম্মান করি : মমতা   নিখোঁজ দুই দিন পর কাপ্তাই হ্রদে ভেসে উঠল পাহাড়ী মেয়ের লাশ   আফগানিস্তানে বোমা হামলায় নিহত ২৫   আজ বিশ্ব বাবা দিবস   নাইজেরিয়াকে হারিয়ে শুরু ক্রোয়েশিয়ার   পেনাল্টি মিসে ডেনমার্কের কাছে হারল পেরু   মেসির পেনাল্টি মিস, আর্জেন্টিনা-আইসল্যান্ড ১-১   খাগড়াছড়িতে বিজয় ত্রিপুরা নামে একজনকে গুলি করে হত্যা   ফ্রান্সের কাছে ২-১ গোলে হেরেছে অস্ত্রেলিয়া   কাশ্মীরে লাদাখ প্রাকৃতিক সৌন্দর্য ও বৌদ্ধ সংস্কৃতির জন্য বিখ্যাত   হ্যাটট্রিকে রোনালদোর রেকর্ড   আত্মঘাতী গোলে মরক্কোর পরাজয়   শেষ মুহূর্তে উরুগুয়ের কাছে হেরে গেল মিসর, উরুগুয়ে-১-মিশর-০   আওয়ামী লীগ নেতাকে গুলি করে হত্যা
প্রচ্ছদ / আন্তর্জাতিক / মিয়ানমারে রোহিঙ্গা জঙ্গিদের হামলার ঘটনায় আমেরিকা দূতাবাসের নিন্দা

মিয়ানমারে রোহিঙ্গা জঙ্গিদের হামলার ঘটনায় আমেরিকা দূতাবাসের নিন্দা

প্রকাশিত: ২০১৮-০১-০৮ ১৭:৩৫:২৮

   আপডেট: ২০১৮-০১-০৮ ১৭:৩৮:৩০

আন্তর্জাতিক ডেস্ক

গত শুক্রবার মিয়ানমার রাখাইনে রোহিঙ্গা জঙ্গিদের হামলার ঘটনায় হামলাকারীদের নিন্দা জানিয়েছে মিয়ানমারে অবস্থিত রেঙ্গুন দূতাবাস।

(৮ জানুয়ারী ) সোমবার আমেরিকা দূতাবাস থেকে এই প্রতিক্রিয়া জানানো হয়।

বিবৃতিতে বলা হয়, উত্তরাঞ্চলীয় রাখাইন রাজ্যে মিয়ানমারের নিরাপত্তা বাহিনীর ওপর হামলায় আরাকান রোহিঙ্গা স্যালভেশন আর্মি (আরসা) কে নিন্দা জানাচ্ছি সেই সাথে যারা হামলায় আহত হয়েছে তাদের পরিবারের প্রতি সহমর্মিতা প্রকাশ করছি।

আমেরিকা দূতাবাসের পক্ষ থেকে আরো বলা হয়, আমরা এই অঞ্চলটিতে শান্তি ও নিরাপত্তা বজায় রাখার জন্য কাজ করে যাচ্ছি।

গত শুক্রবার (৫ জানুয়ারী) উপকূলের উত্তরের অংশে মংডু থেকে প্রায় ৩০ কিলোমিটার দূরে আরাকানিজ গ্রামে ২০ জন জঙ্গি একসঙ্গে ঘরে তৈরি মাইন ও ছোট আগ্নেয়াস্ত্র নিয়ে আক্রমণ চালিয়েছে৷ এসময় মিলিটারি ট্রাকে হামলা চালিয়ে কয়েকজন সেনাকর্মী মারাত্মকভাবে জখম হয়।

এই ঘটনার জন্য মিয়ানমার সেনাবাহিনী আন্তর্জাতিক সংবাদমাধ্যম বরাতে নিন্দা জানিয়েছে।

এদিকে, রোহিঙ্গা বিদ্রোহীদের সংগঠন অারাকান রোহিঙ্গা স্যালভেশন আর্মির (আরসা) মিয়ানমার সেনাবাহিনীর বিরুদ্ধে যুদ্ধের বিকল্প নেই বলে জানিয়েছেন। রোহিঙ্গা বিদ্রোহীদের গ্রুপ আরকান রোহিঙ্গা স্যালভেশন আর্মির (আরসা) নেতা আতা উল্লাহ এক বিবৃতিতে এ দাবি করেছেন।

সরকারের পক্ষ থেকে দাবি করা হচ্ছে, তখনও প্রথমে আরসা সেনাবাহীনির ৩০টির বেশি চৌকিতে হামলা চালিয়েছিল৷ এরপরে রাখাইনে সেনা অভিযান শুরু করা হয়৷ এর জেরে লক্ষ লক্ষ মানুষ প্রাণভয়ে প্রতিবেশী বাংলাদেশের চট্টগ্রামে ঢুকে পড়েছেন৷ বহু মানুষের মৃত্যু হয়েছে৷

মিয়ানমার সেনাবাহিনীর এই অভিযানকে জাতিগত নিধনের চেষ্টা হিসেবে চিহ্নিত করে নিন্দা জানিয়েছে জাতিসংঘ। বৌদ্ধ সংখ্যাগরিষ্ঠ মিয়ানমার সরকার জাতিসংঘের এ অভিযোগ প্রত্যাখ্যান করেছে।

মিয়ানমার সরকার ইতিমধ্যে রোহিঙ্গাদের ফিরিয়ে নেওয়ার উদ্যোগ নিয়েছে। তবে চুক্তি ও শর্তঅনুযায়ী তাদের ফিরিয়ে নেওয়া হবে বলে রাষ্ট্রীয় বিবৃতিতে এমনতাই দাবি করা হচ্ছে।

সংশ্লিষ্ট সূত্রে জানা যায়, গত ১৯ ডিসেম্বর ঢাকায় বাংলাদেশ ও মিয়ানমারের মধ্যে যৌথ ওয়ার্কিং গ্রুপ গঠনের পর প্রথম বৈঠক আগামী ১৫ জানুয়ারি মিয়ানমারে অনুষ্ঠিত হবে। তবে ২৩ নভেম্বর প্রত্যাবাসন চুক্তি সই হওয়ার তিন মাসের মধ্যে অর্থাৎ আগামী ২২ জানুয়ারি প্রত্যাবাসন শুরুর যে লক্ষ্য ঠিক করা হয়েছে, তা বাস্তবায়ন করা কঠিন হতে পারে।

মিয়ানমারের রাখাইন রাজ্যে সহিংসতার জেরে বাংলাদেশে পালিয়ে আসা রোহিঙ্গাদের ফিরিয়ে নিতে বাংলাদেশ ও মিয়ানমানের মধ্যে সমঝোতা স্মারক (এমওইউ) গেল বছর ২০১৭ সালে ২৩ নভেম্বর সই হয়েছে।

সই হওয়া চুক্তিটি ১৯৯২ সালে বাংলাদেশ ও মিয়ানমার সরকারের মধ্যে সই হওয়া চুক্তির আলোকেই করা হয়েছে এবং রাখাইনের বাস্তুচ্যুত ব্যক্তিদের পর্যায়ক্রমে যাচাই ও ফিরিয়ে নেওয়ার বিষয়ে সাধারণ নির্দেশিকা ও নীতিমালা এতে রয়েছে।

আপনার মন্তব্য

আলোচিত