শিরোনাম

  গত ৫ বছরে জেএসএস এমপি উন্নয়ন করতে পারেনি, যা করেছে আওয়ামীলীগ করেছে : দিপংকর তালুকদার   এখন থেকে সরকারি চাকরিতে যোগ দেওয়ার আগে মাদক পরীক্ষা বাধ্যতামূলক   'বান্দরবানে বিদেশি পর্যটকদের ভ্রমণে কোনো নিষেধাজ্ঞা নেই'   'নির্বাচনী প্রচারণায় রঙিন পোস্টার বা ব্যানার ব্যবহার করা যাবে না'   ৫৮টি নিউজ পোর্টাল খুলে দিয়েছে বিটিআরসি   বুধবার থেকে নির্বাচনী প্রচারণা শুরু করবেন প্রধানমন্ত্রী   বিএনপি ক্ষমতায় এলে শান্তি চুক্তি বাস্তবায়ন করার চেষ্ঠা করবো: মনি স্বপন দেওয়ান   তিন পাহাড়ে নৌকা নিয়ে মাঠে দৌড়াবেন যারা   আগামীকাল খালেদা জিয়ার অগ্নিপরীক্ষা   হিরোকে জিরো বানানো এত সহজ নয়, সফল হিরো আলমের চ্যালেঞ্জ   খাগড়াছড়িতে বনের রাজা পেয়েছেন ইউপিডিএফের প্রার্থী নতুন কুমার চাকমা   বিশ্বের প্রথম উঁচু ভাস্কর্য 'চীনের স্প্রিং টেম্পল বুদ্ধ'   আন্তর্জাতিক মানবাধিকার দিবস || আদিবাসীদের মানবাধিকার প্রতিষ্ঠায় এগিয়ে আসার অাহ্বান   বনের রাজা সিংহকে নিয়ে রাঙ্গামাটিতে দৌড়াবেন ঊষাতন তালুকদার   আজ বিশ্ব মানবাধিকার দিবস   নির্বাচনে স্বতন্ত্র প্রার্থীদের জন্য যেসব মার্কা দেওয়া হচ্ছে...   নির্বাচনে প্রচার-প্রচারণায় সকল প্রার্থীদের যা যা মেনে চলতে হবে   নির্বাচনে গাড়ি প্রতীক পেয়েছেন স্বতন্ত্র প্রার্থী ইমরান এইচ সরকার   দেশে ৫৮টি নিউজ পোর্টাল বন্ধের নির্দেশ দিয়েছে বিটিআরসি   পার্বত্য চট্টগ্রামে শান্তি ফিরিয়ে আনার জন্য শেখ হাসিনাকে শান্তিতে নোবেল পুরস্কার দেওয়া উচিত
প্রচ্ছদ / রাজনীতি / ১০ বছরে ২৫ লাখ বিএনপির নেতাকর্মী আসামী : মামলা সংখ্যা ৯০ হাজার

১০ বছরে ২৫ লাখ বিএনপির নেতাকর্মী আসামী : মামলা সংখ্যা ৯০ হাজার

প্রকাশিত: ২০১৮-১১-১৮ ১২:৩৬:৫৭

নিউজ ডেস্ক

নির্বাচন কমিশনের (ইসি) কাছে বিএনপি নেতাকর্মীদের নামে দায়ের হওয়া মামলার তথ্য জানিয়ে চিঠি দিয়েছে বিএনপি। এতে বলা হয়েছে ২০০৯ সাল থেকে এ পর্যন্ত ১০ বছরে মামলা হয়েছে ৯০ হাজার ৩৪০টি। এ সব মামলায় আসামি করা  ২৫ লাখ ৭০ হাজার ৫৪৭ জনকে।

বিএনপির সহ-দফতর সম্পাদক তাইফুল ইসলাম টিপু স্বাক্ষরিত চিঠিতে এ তথ্য জানানো হয়। খবরঃ সারা বাংলা ডট নেটের।

চিঠিতে আরও বলা হয়, জেলহাজতে থাকা আসামির সংখ্যা ৭৫ হাজার ৯২৫ জন, মোট হত্যার সংখ্যা ১ হাজার ৫১২ জন। এর মধ্যে  আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর হাতে বিএনপি নেতাকর্মী হত্যার সংখ্যা ৭৮২ জন, বিভিন্ন দলের মোট গুমের সংখ্যা ১ হাজার ২০৪জন। এর মধ্যে আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর হেফাজত থেকে গ্রেফতার দেখানো হয় ৭৮১ জনকে এবং বিএনপির গুম ছিল ৪২৩ জন,  ৩০ সেপ্টম্বর পর্যন্ত বিএনপি নেতাকর্মীরা গুম রয়েছেন ৭২ এবং গুরুতর জখম ও আহত হয়েছেন ১০ হাজার ১২৬ জন।

এ সব মামলার অধিকাংশ ‘গায়েবি ও মিথ্যা’ বলে উল্লেখ করেছে বিএনপি। আইন-শৃঙ্খলা রক্ষাবাহিনী যাতে ‘গায়েবি ও মিথ্যা’ মামলার আসামিদের গ্রেফতার না করে- সে জন্য পুলিশ প্রশাসনকে নির্দেশনা দিতে নির্বাচন কমিশনের (ইসি) হস্তক্ষেপ চেয়েছে বিএনপি।

রোববার সকালে এ সংক্রান্ত একটি তালিকা দলের মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর স্বাক্ষরিত মামলার তালিকা প্রধান নির্বাচন কমিশনার (সিইসি) কেএম নূরুল হুদার কাছে পাঠানো হয়।

বিএনপির কেন্দ্রীয় কার্যালয়ের মামলা ও তথ্য সংগ্রহকারী কর্মকর্তা মো. সালাউদ্দিন খান ইসিতে এসে এ সংক্রান্ত একটি চিঠি ইসির প্রাপ্তি জারি শাখায় জমা দেন।

বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর স্বাক্ষরিত চিঠিতে বলা হয়, একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন সামনে রেখে চলতি বছরের ১ সেপ্টেম্বর থেকে দেশব্যাপী আইন-শৃঙ্খলা বাহিনী বাদী হয়ে বিএনপি নেতাকর্মীদের মিথ্যা গায়েবি মামলা রুজ্জু ও গ্রেফতার অভিযান পরিচালনা করছে। এতে এখন পর্যন্ত ২ হাজার ২টি মামলায় ৫ হাজারেরও বেশি মানুষকে আসামি করা হয়েছে। এর মধ্যে ৭ হাজার ৭৭৩ জনকে গ্রেফতার করা হয়েছে।

চিঠিতে আরও বলা হয়, এসব গায়েবি ও মিথ্যা মামলার আসামিদের গ্রেফতার বা হয়রানি না করার জন্য বিএনপিসহ ২০ দল ও জাতীয় ঐক্যজোট ৭ দফা দাবি নিয়ে প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে আলোচনায় মিলিত হয়। ওই আলোচনায় প্রধানমন্ত্রী এসব মামলা ও গ্রেফতারের তথ্য তার দফতরে পাঠাতে বলেন। এ অনুযায়ী গত ৭ নভেম্বর ১০৪৬ টি ও পরে ১৩ নভেম্বর ১০০২ টি মামলার তথ্য জানানো হয়। তবে তালিকা পাঠানোর পরও এখন পর্যন্ত মামলা প্রত্যাহার ও গ্রেফতার হওয়া নেতাকর্মীদের অব্যাহতি দেওয়ার কোনো তথ্য আমাদের অবহিত করা হয়নি। এমন অবস্থায় বিএনপি বিষয়টিতে ইসির হস্তক্ষেপ কামনা করছে।

আপনার মন্তব্য

আলোচিত