শিরোনাম

  নৌকার জয় সুনিশ্চিত : প্রধানমন্ত্রী   আজ ইউপিডিএফ’র ২০তম প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী   এবার থাইল্যান্ডে বৈধ হলো গাঁজা   ইউপিডিএফ প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উপলক্ষে সকলকে সংগ্রামী শুভেচ্ছা জানালেন প্রসিত বিকাশ খীসা   চীনা শিশুরা আর স্কুল পালাতে পারবে না!   আবার ক্ষমতায় গেলে ভুল সংশোধন করা হবে : কাদের   প্রধানমন্ত্রী থেকে মাতৃভাষার বই পেয়েছে ক্ষুদ্র জনগোষ্ঠীর শিশুরা   শুভ বড়দিন আজ   রোহিঙ্গাদের জন্য শীতবস্ত্র পাঠাল ভারত   ইন্দোনেশিয়ায় সুনামির আঘাতে মৃতের সংখ্যা বেড়ে ৪০০ অধিক ছাড়িয়েছে   টাকার মালা উপহার পেলেন ফখরুল!   মধ্যরাত থেকে নির্বাচনী মাঠে সেনাবাহিনী   ভোটের দিন ২৪ ঘণ্টা সব যান চলাচল বন্ধ   সেনা মোতায়েনে ভোটারদের মধ্যে আস্থা ফিরে আসবে: সিইসি   পানছড়িতে ইউপিডিএফের নির্বাচনী অফিসে এলোপাতাড়ি ব্রাশ ফায়ারে ২ জন নিহত!   জেএসসি ও পিইসি পরীক্ষার ফল প্রকাশ   আগামী ৩০ তারিখ আমরা নৌকার বিজয় নিয়ে ঘরে ফিরবো: দীপংকর তালুকদার   ইন্দোনেশিয়ায় সুনামির আঘাতে মৃতের সংখ্যা বেড়ে ২২২ জন   যারা মানুষ পুড়িয়ে মারে তাদের ভোট দেবেন নাঃ প্রধানমন্ত্রী   ২৮ ডিসেম্বর থেকে ১ জানুয়ারি মধ্যরাত পর্যন্ত ৪ দিন মোটরসাইকেল চলাচলে নিষেধাজ্ঞা
প্রচ্ছদ / জাতীয় / কেউ বাপ দাদার সম্পত্তি মনে করে কেন্দ্র দখল ও ব্যালট ছিনতাইয়ের চেষ্টা করলে কঠোর ব্যবস্থা

কেউ বাপ দাদার সম্পত্তি মনে করে কেন্দ্র দখল ও ব্যালট ছিনতাইয়ের চেষ্টা করলে কঠোর ব্যবস্থা

প্রকাশিত: ২০১৮-১২-১৯ ২১:৪২:৩৮

   আপডেট: ২০১৮-১২-১৯ ২১:৪৬:৫৭

>>

রাঙ্গামাটির জেলা প্রশাসক ও জেলা রিটর্নিং অফিসার এ কে এম মামুনুর রশিদ বলেছেন, কেউ বাপ দাদার সম্পত্তি মনে করে কেন্দ্র দখল ও ব্যালট  ছিনতাইয়ের চেষ্টা করলে কঠোর ব্যবস্থা নেয়া হবে। রাঙ্গামাটি ২৯৯ আসনের নির্বাচনকে প্রশাসন চ্যালেঞ্জ হিসেবে নিয়েছে।

তিনি বলেন, ছিনতাইয়ের মত ঘটানোর চেষ্টা করবেন না। রাঙ্গামাটির কোন কেন্দ্র কারো দখলে থাকার সুযোগ দিবেনা প্রশাসন। প্রতি কেন্দ্রে সব দলের ভোটার ও এজেন্টদের নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে রাঙ্গামাটির ২০৩ কেন্দ্রেই পুলিশের পাশাপাশি সেনাবাহিনী ও বিজিবি মোতায়েন থাকবে। নির্বাচনকে ঘিরে কেউ বিশৃংখলার সৃষ্টির চেষ্টা করলে সে যে দলেরই হোক এবং যতই শক্তিশালী হোক কঠোর ব্যবস্থা নেয়া হবে।

আসন্ন একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন উপলক্ষে ১৯ ডিসেম্বর বুধবার দুপুরে কাউখালীতে অনুষ্ঠিত আইন শৃংখলা বিষয়ক মতবিনিময় সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে উপরোক্ত কথা বলেন।

জেলা প্রশাসক বলেন, রাঙামাটি ২৯৯ আসনের নির্বাচনকে প্রশাসন চ্যালেঞ্জ হিসেবে নিয়েছে। রাঙামাটির কোনো কেন্দ্র কারো দখলে থাকার সুযোগ দিবে না প্রশাসন। প্রতি কেন্দ্রে সব দলের ভোটার ও এজেন্টদের নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে রাঙামাটির ২০৩ কেন্দ্রেই পুলিশের পাশাপাশি সেনাবাহিনী ও বিজিবি মোতায়েন থাকবে।

তিনি বলেন, নির্বাচনী আচরণবিধি মেনে পারস্পরিক সৌহার্দপূর্ণ সম্পর্ক বাজায় রেখে নির্বাচনী মাঠে কাজ করুন। ভোটাররা যাতে নির্ভয়ে ভোট কেন্দ্রে গিয়ে ভোটাধিকার প্রয়োগ করতে পারে প্রশাসন সে ব্যাপারে কাজ করে যাচ্ছে। নির্বাচন ঘিরে কেউ বিশৃঙ্খলা সৃষ্টির চেষ্টা করলে সে যে দলেরই হোক প্রশাসন কঠোর ব্যবস্থা গ্রহণ করবে।

এসময় কাউখালী উপজেলা নির্বাহী অফিসার মোহাম্মদ মিনহাজুর রহমানের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত সভায় উপস্থিত ছিলেন রাঙ্গামাটি পুলিশ সুপার মো. কবির হোসাইন, উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান এসএম চৌধুরী প্রমুখ।

আপনার মন্তব্য

আলোচিত