শিরোনাম

  ছেলেদের চেয়ে এবারও এগিয়ে মেয়েরা   চট্টগ্রাম বোর্ডের পাশের হার ৬২.৭৩ %   যারা ফেল করেছে তাদের বকাঝকা করবেন না : প্রধানমন্ত্রী   এইচএসসি তে পাসের ধস নেমেছে এবার   এইচএসসি ও সমমানে পাসের হার এবার ৬৬.৬৪   হাসপাতাল ছাড়ার পর এবার থাই কিশোররা সবাই শ্রামণ হয়ে প্রবজ্যা গ্রহণ করবে   থাইল্যান্ডের গুহায় আটকা পড়া কিশোররা হাসপাতাল ছেড়েছে   ৮ দল নিয়ে বাম গণতান্ত্রিক জোটের আত্মপ্রকাশ   আগামীকাল এইচএসসির ফল প্রকাশ হবে   নেলসন ম্যান্ডেলার জন্ম শতবার্ষিকী আজ   চট্টগ্রাম আঞ্চলিক অফিসেই মিলবে হারানো জাতীয় পরিচয়পত্র   উ. কোরিয়াকে নিরাপত্তা নিশ্চয়তা প্রদানে অংশ নিতে প্রস্তুত রাশিয়া   রাঙামাটিতে ইউপিডিএফ নেতা রাহেলকে ৪ দিনের রিমান্ড দিয়েছে আদালত   এবার খাগড়াছড়িতে সেটেলার কর্তৃক আদিবাসী স্কুল ছাত্রীকে ধর্ষণ   দেশে ছয় মাসে ধর্ষণের শিকার ৫৯২: মহিলা পরিষদ   ফ্রান্সে বিশ্বকাপ বিজয় উল্লাস করতে গিয়ে ব্যাপক সংঘর্ষ-লুটপাট, নিহত ২   মিয়ানমারে জাতিগত ৩ গ্রুপের বিদ্রোহীদের সংঘর্ষে শতাধিক মানুষ পালিয়েছে   নির্বাচন আসছে, সংখ্যালঘুদের মধ্যে চিন্তা বাড়ছে: জাফর ইকবাল   ডুবুরী সানামের জন্য শোক ও মঙ্গলকামনা করেছেন গুহায় আটকা পড়া কিশোররা   আয়ারল্যান্ডে ‘হিন্দু, বৌদ্ধ ও খ্রিস্টান ঐক্য পরিষদের’ “অসাম্প্রদায়িক বাংলাদেশ গঠনের ডাক”
প্রচ্ছদ / জাতীয় / প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে জাতিসংঘ মহাসচিব-বিশ্বব্যাংক প্রধানের বৈঠক

প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে জাতিসংঘ মহাসচিব-বিশ্বব্যাংক প্রধানের বৈঠক

প্রকাশিত: ২০১৮-০৭-০১ ১৬:৫১:২৭

ইউএনবি, ঢাকা

রোহিঙ্গা ইস্যুর যৌক্তিক সমাধানে মিয়ানমারের ওপর আরো বল প্রয়োগের কথা বলেছেন জাতিসংঘের মহাসচিব অ্যান্তেনিও গুতেরেস।

তিনি বলেন, তাদের (মিয়ানমার) ওপর আরো বল প্রয়োগ করতে হবে, যাতে তারা রোহিঙ্গা ইস্যুতে কি করতে হবে তা বুঝতে পারে।

রবিবার প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সাথে তার কার্যালয়ে সাক্ষাৎকালে জাতিসংঘ মহাসচিব এ মন্তব্য করেন। এসময় বিশ্বব্যাংকের প্রেসিডেন্ট জিম ইয়ং কিম উপস্থিত ছিলেন।

বৈঠক শেষে প্রধানমন্ত্রীর প্রেস সচিব ইহসানুল করিম এ বিষয়ে বিস্তারিত জানান।

তিনি জানান, বৈঠককালে জাতিসংঘ এবং বিশ্বব্যাংক রোহিঙ্গা ইস্যুতে বাংলাদেশের পাশে থেকে সহায়তা অব্যাহত রাখার কথা দিয়েছে।

রোহিঙ্গা ইস্যুতে বাংলাদেশের প্রতি অন্য দেশগুলোর সংহতির বিষয়টি জাতিসংঘ মহাসিচব পুনারাবৃত্তি করেন। তিনি রোহিঙ্গাদের আশ্রয়দানের জন্য বাংলাদেশ সরকারের প্রতি কৃতজ্ঞতা জানান।

এসময় তিনি রোহিঙ্গাদের সহায়তায় বিশ্বব্যাংককে এগিয়ে আসার জন্যও ধন্যবাদ জানান।

প্রধানমন্ত্রী এসময় জাতিসংঘ মহাসচিবকে রোহিঙ্গাদের বর্তমান অবস্থা সম্পর্কে অবহিত করেন। পাশাপাশি ১৯৭৭ সাল থেকে রোহিঙ্গারা এদেশে প্রবেশ করছে বলে জানান।

প্রধানমন্ত্রী আরো বলেন, বাংলাদেশ এখন পর্যন্ত ১.১ মিলিয়ন রোহিঙ্গা সদস্যকে আশ্রয় দিয়েছে। মানবিক কারণে আশ্রয় দেয়া এই বিপুল সংখ্যক জনগোষ্ঠীকে স্বাস্থ্য সেবা সহ বিভিন্ন মানবিক সহায়তা প্রদান করা হচ্ছে বলে তিনি জানান।

তিনি আরো জানান, সরকার ইতিমধ্যে একটি দ্বীপকে এক লাখ রোহিঙ্গার জন্য বাস উপযোগী করে তুলছে। সেখানে স্থানান্তর করা হলে রোহিঙ্গারা আরো ভালো থাকবে।

১০ লাখেরও বেশি রোহিঙ্গা সদস্যকে আশ্রয়দানের কারণে স্থানীয় জনগোষ্ঠি যে বিভিন্ন সমস্যার সম্মুখিন হচ্ছে সে বিষয়টিও প্রধানমন্ত্রী জাতিসংঘ মহাসচিবকে অবহিত করেন।

প্রধানমন্ত্রী আরো বলেন, রোহিঙ্গা জনগোষ্ঠির সম্মানজনক ও যৌক্তিক প্রত্যাবাসনের জন্য বাংলাদেশের সাথে চুক্তি স্বাক্ষর হলেও মিয়ানমারের পক্ষ থেকে এখনো বাস্তবিক কোনো পদক্ষেপ লক্ষ্য করা যায়নি।

আপনার মন্তব্য

আলোচিত