আজ শুক্রবার, | ১৫ ডিসেম্বর ২০১৭ ইং

শিরোনাম

  সন্তুু লারমার কুশপুত্তলিকা দাহ করার প্রতিবাদে ও স্বেচ্ছায় বাঘাইছড়িতে আ. লীগের অর্ধশত পাহাড়ী নেতা-কর্মীর পদত্যাগ   পার্বত্য চট্টগ্রাম শান্তি চুক্তিতে যেসব বিষয় অবাস্তবায়িত রয়ে গেছে   অনাদী রঞ্জন চাকমা হত্যাকারীদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা গ্রহণের দাবিতে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর বরাবর স্মারকলিপি   রাংগামাটি বাঘাইছড়ি পৌরসভা ও ইউনিয়নে স্বেচ্ছায় আরো ২১ জন পাহাড়ি আ. লীগ নেতার পদত্যাগ   এবার আয়ারল্যান্ড থেকে সু চির \'ফ্রিডম অব ডাবলিন সিটি’ পুরস্কার প্রত্যাহার   শহীদ বুদ্ধিজীবী দিবস আজ   রোহিঙ্গাদের জন্য ১৪ দশমিক ৫ মিলিয়ন ডলার অনুদান দিবে যুক্তরাষ্ট্র   ২০ হাজার ভিক্ষু নিয়ে মান্দালয়ে অনুষ্ঠিত হবে থাইল্যান্ড এবং মিয়ানমারের মহাদান অনুষ্ঠান   মিয়ানমারে রয়টার্সের দুই সাংবাদিক আটক, দোষী সাব্যস্ত হলে ১৪ বছর কারাদন্ড হতে পারে   ত্রিপুরা রাজ্যে মায়েদের সন্তান পালনের জন্য ছুটি দুই বছর   প্যারিসে শীর্ষক গণশুনানি ও জলবায়ু পরিবর্তনের প্রতিবাদে বিক্ষোভ সমাবেশ   আন্তর্জাতিক বৌদ্ধ কনফেডারেশন মহাসচিব হিসেবে নির্বাচিত হলেন ত্রিপুরা বৌদ্ধ ভিক্ষু   জালালাবাদ এসোসিয়েশন অফ টরোন্টোর ট্রাস্টী এবং উপদেষ্টামণ্ডলীর পরিচিতি সভা অনুষ্ঠিত   ত্রাণের উপর ঘুমাচ্ছে রোহিঙ্গারা , শীতে কেমন আসে লংগদুর পাহাড়িরা?   পার্বত্য এলাকায় আইন শৃঙ্খলা রক্ষার প্রাথমিক দায়িত্ব আঞ্চলিক ও জেলা পরিষদের ওপর ন্যস্ত করার সুপারিশ   হামলার অভিযোগে আটককৃত ব্যক্তিরা রাঙ্গাপানি ও ভেদভেদী এলাকার অটোরিক্সা চালক, ছাত্র ও দিনমজুর   তিব্বতীয় মুসলমানরা দালাই লামাকে এখনো নেতা হিসেবে মনে করে   রাঙ্গামাটিতে ৬৯ গ্রামবাসী ও জেএসএস সদস্যের বিরুদ্ধে মিথ্যা মামলা, নিরীহ ১৯ জনকে গ্রেফতার, ১২ জনকে হয়রানির অভিযোগ   নিউইয়র্কে হামলাকারী সন্দেহভাজন ব্যক্তি চট্টগ্রাম থেকে, পরিবার আতঙ্কিত   বঙ্গবন্ধুর ৭ই মার্চ ভাষণের বিশ্ব স্বীকৃতিতে কানাডার অটোয়ায় বাংলাদেশ হাইকমিশনের আনন্দ শোভাযাত্রা

আপন জুয়েলার্সকে বয়কটের আহ্বান সুবর্ণা মুস্তাফার

প্রকাশিত: ২০১৭-০৫-১২ ১৩:০৭:৩৬

   আপডেট: ২০১৭-০৫-১২ ১৩:০৯:৩৯

বিনোদন ডেস্ক

রাজধানী বনানীর এক আবাসিক হোটেলে দুই বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্রীকে ধর্ষণের ঘটনায় ঘৃণা আর ক্ষোভে ফুঁসছে সারা দেশের মানুষ। এই ঘটনায় জড়িত দুই অভিযুক্ত সাফাত আহমেদ ও সাদমান সাকিফের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবিতে সারা দেশে চলছে বিক্ষোভ-আন্দোলন। এর মধ্যে সাফাত আহমেদ আপন জুয়েলার্সের মালিক দিলদার আহমেদের ছেলে। এ কারণে ক্ষুব্ধ অনেকে ফেসবুকে আপন জুয়েলার্সকে বয়কটের আহ্বান জানিয়েছেন। সেই তালিকায় এবার নাম লেখালেন নন্দিত অভিনেত্রী সুবর্ণা মুস্তাফা।

ঘটনার তীব্র প্রতিবাদ জানিয়ে গত মঙ্গলবার সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে নিজের একাউন্টে দেয়া এক পোস্টে তিনি আপন জুয়েলার্সের গহনা বয়কট করার আহ্বান জানান।

এই অভিনেত্রী লিখেছেন, ‘ইউনাইটেড এয়ারলাইনস যখন টেনে হিঁচড়ে এক যাত্রীকে প্লেন থেকে বের করে দিল, তখন কিন্তু তাদের সিইও জনসমক্ষে ক্ষমা চাননি। যখন জনগন ঐক্যবদ্ধ হয়ে ইউনাইটেডকে বয়কট করল, যখন তাদের শেয়ারের মূল্যে ধস নামলো, যখন তারা কয়েক দিনের মাথায় ১ বিলিয়ন ডলারের মত সম্পদ হারালো, তখন সিইও জনসমক্ষে আসলেন। বললেন, খুব ভুল হয়ে গেছে, মাফ করে দিন। ’

বয়কট আপন হ্যাশট্যাগ দিয়ে সুবর্ণা আরও লিখেছেন, ‘কাল থেকে অনেকেই আশঙ্কা প্রকাশ করছেন, বলছেন যেহেতু প্রভাবশালী পরিবারের ছেলে, কয়েকদিন মিডিয়া একটু হইচই করবে, তারপর ব্যাপারটাকে ধামাচাপা দেয়া হবে। এটা হওয়ার সম্ভাবনা নেহায়েত কম নয়।

কিন্তু এবার আমাদের একটা পদক্ষেপ নেয়ার সুযোগ আছে। যারা গহনা কিনে থাকেন, তাদের জন্য আপন জুয়েলার্স অতি পরিচিত নাম। আমাদের উচিত আপন জুয়েলার্সকে সম্পূর্ণভাবে বয়কট করা। যতগুলো ঘরে ফেসবুক রয়েছে, সেসব পরিবার যদি দৃঢ় প্রতিজ্ঞা নেয়, আপন জুয়েলার্স থেকে আর কোন কেনাকাটা করা হবে না, বিশেষ মূল্যছাড় দিলেও না; তখন ওদের বিবেক ওদের কিছু বলুক আর না বলুক, এবার ঈদ ও বিয়ের মৌসুমে ওদের ব্যালেন্সশিট অন্তত ওদেরকে জানিয়ে দেবে, কাজটা ঠিক হয়নি।

বলতে পারেন, এরা ইতিমধ্যেই যত টাকা বানানোর বানিয়ে ফেলেছে, এসব করে কি আদৌ কোনো লাভ হবে? একই কথা কিন্তু ইউনাইটেডের মতো কোম্পানির ক্ষেত্রেও বলা যেত। কিন্তু মানুষ সত্যি ঐক্যবদ্ধ বলেই এক্ষেত্রে ইউনাইটেড তাদের ভুল বুঝতে পেরেছে।

বয়কটের প্রভাব একেবারে নগণ্য নয়। এমনকি ইসরাইলের মতো শক্তিশালী রাষ্ট্র বিডিএস মুভমেন্ট দ্বারা এতটা ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে যে তারা এখন অ্যান্টি-বিডিএস মুভমেন্টের পেছনে যথেষ্ট টাকা ব্যয় করছে। এ ধরনের ঘটনায় আমরা সব সময় শুনে থাকি, আইন তার নিজ গতিতে চলবে। এবার আমাদের বলার পালা, ক্রেতারাও তার নিজ বিবেচনায় বেচা-কেনা করবে।’

আপনার মন্তব্য


আলোচিত